• A
  • A
  • A
র‍্যাগিং রুখতে একাধিক পদক্ষেপ নিচ্ছে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়

কলকাতা, ১৭ এপ্রিল : র‍্যাগিং রোধে একাধিক পদক্ষেপ নিচ্ছে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়। গতকাল একথা জানান কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য সোনালি চক্রবর্তী বন্দ্যোপাধ্যায়। র‍্যাগিং সমস্যা রয়েছে একথা স্বীকার করে নিয়ে তিনি জানান, র‍্যাগিং রুখতে বিশ্ববিদ্যালয় একাধিক গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নিয়েছে। সেগুলি বাস্তবায়িত হলে র‍্যাগিং কমার বিষয়ে তিনি আশাবাদী।

শুনুন কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য সোনালি চক্রবর্তী বন্দ্যোপাধ্যায়ের বক্তব্য


কী কী পদক্ষেপ? সোনালি চক্রবর্তী বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “১৬টি হস্টেলে ফুলটাইম সুপার নিয়োগ করা হবে। সেই সুপার ২৪ ঘণ্টা সজাগ থাকবেন। যাতে র‍্যাগিং কমানো যায়। ফাস্ট ইয়ারের জন্য আলাদা হস্টেল রাখা হচ্ছে। এর ফলে নতুনরা র‍্যাগিংয়ের হাত থেকে রক্ষা পাবে। ফার্স্ট ইয়ারের জন্য নিউ ল কলেজ হস্টেলকে বাছা হয়েছে। সেকেন্ড ইয়ার হলেই সেই হস্টেল ছেড়ে যেতে হবে। ফলে আশা করা যায় সিনিয়ররা র‍্যাগিং করতে পারবে না। এটাকে পাইলট প্রোজেক্ট হিসাবে করা হচ্ছে। যদি সফল হয় তাহলে মেয়েদের জন্যও এই ব্যাবস্থা করা হবে। বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিতর কোনওভাবেই মাদক দ্রব্য ব্যাবহার করা যাবে না। বিশ্ববিদ্যালয় হস্টেলগুলোতে শুধু বোর্ডাররা থাকতে পারবে। নন বোর্ডার নয়।”


কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য সোনালি চক্রবর্তী বন্দ্যোপাধ্যায়

কিছুদিন আগে প্লেসমেন্টর দাবিতে রাজাবাজার সায়েন্স কলেজে টেকনোলজি ডিপার্টমেন্টের প্রধানকে রাত ১২টা পর্যন্ত তার ঘরে আটকে রেখেছিল পড়ুয়ারা। এব্যাপারে উপাচার্য বলেন, "ডিন টেকনোলজি ও জয়েন্ট ডেপুটি রেজিস্ট্রার আমাকে এবিষয়ে চিঠি দিয়েছে। দুজন ছাত্রকে শোকজ় করা হচ্ছে।”

ক্লাস না করে পরীক্ষার বসতে দেওয়ার দাবিতে আন্দোলন করে থাকে ছাত্রছাত্রীরা। যা নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন উপাচার্য। বলেন, “আমি মনে করি না এসব আন্দোলন। অরাজকতা বলা ভালো। নির্দিষ্ট পারসেন্ট উপস্থিতি নেই। তারপরও অনৈতিক দাবি তুলে আন্দোলন করা হচ্ছে। পড়াশোনা করার জন্য সুস্থ পরিবেশের দরকার। নিয়ম মেনে চলা দরকার। তা করছে না পড়ুয়াদের একাংশ।”

CLOSE COMMENT

ADD COMMENT

To read stories offline: Download Eenaduindia app.

SECTIONS:

  হোম

  রাজ্য

  দেশ

  বিদেশ

  ক্রাইম

  খেলা

  বিনোদন-E

  ইন্দ্রধনু

  অনন্যা

  গ্যালারি

  ভ্রমণ

  জনমত পঞ্চমত ২০১৮

  ଓଡିଆ ନ୍ୟୁଜ

  MAJOR CITIES