• A
  • A
  • A
“বসন্ত কালে বৈশাখী ঝড়ে টলমল মেয়রের চেয়ার”

কলকাতা, ১৪ মার্চ : “বসন্ত কালে বৈশাখী ঝড়ে কলকাতা পৌরনিগম এবং মেয়রের চেয়ার টলমল করছে। সেখানে বসে তিনি এই বাজেট পেশ করলেন। সুস্থ মস্তিষ্ক না থাকলে কীভাবে কাজ করবেন? আমাদের ব্যক্তিগত জীবনটাই যদি দুষ্কর হয়ে যায়, রাতের ঘুম চলে যায়, তাহলে আমরা কীভাবে জনগণের প্রতি দায়িত্ব পালন করব?” আজ মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়ের উদ্দেশ্যে এই মন্তব্য করলেন কলকাতা পৌরনিগমের ৯৯ নম্বর ওয়ার্ডের RSP কাউন্সিলর দেবাশিস মুখার্জি।

ছবি-RSP কাউন্সিলর দেবাশিস মুখার্জি, ভিডিওয়-তাঁর বক্তব্য শুনুন


কলকাতা পৌরনিগমে বাজেট অধিবেশন চলছে। কিন্তু অভিযোগ, বাজেটের থেকে বেশি আলোচ্য বিষয় হয়ে উঠেছে মেয়রের ব্যক্তিগত জীবন। আজ অধিবেশনের দ্বিতীয় দিনে দেবাশিসবাবু ছিলেন প্রধান বক্তা।



কলকাতা পৌরনিগমে মেয়র সহ অন্যরা

অধিবেশন শেষে তিনি সংবাদমাধ্যমের সামনে বলেন, “মহানাগরিক শোভন চট্টোপাধ্যায় সংবাদমাধ্যমে বলেছেন তিনি ব্যক্তিগতভাবে খুব খারাপ অবস্থার মধ্যে দিয়ে চলেছেন। আমি তাঁকে সহানুভূতি জানিয়েছিলাম। তাঁর পাশে থাকার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলাম। মহানাগরিক বাজেট পেশ করেছেন। কিন্তু, তিনিই বাজেটকে গুরুত্বহীন করে দিয়েছেন। গতকাল মাত্র ১০ মিনিট বাজেট আলোচনায় ছিলেন। বাকি সময়টা সংবাদমাধ্যমের কাছে ব্যক্তিগত জীবনের সুখ-দুঃখ নিয়ে আলোচনা করেছেন। তা ছাড়া কলকাতা পৌরনিগমের ইতিহাসে ১৯২৩ সাল থেকে এই প্রথম এমন একজন মেয়রের চেয়ারে বসে আছেন যিনি দুর্নীতির অভিযোগে CBI তদন্তের মুখোমুখি।”

দেবাশিসবাবু বলেন, “মেয়রের কথার কোনও গুরুত্ব নেই। কয়েক বছর ধরে পৌরনিগমে কোনও মজদুর নিয়োগ হয়নি। ফলে, শহরে জঞ্জাল পরিষ্কার পরিষেবা ব্যাহত হচ্ছে। ২০১৬ সালের মে মাসে যখন আমরা হাউজ়ে এই প্রশ্নগুলি করেছিলাম, তখন উনি বুক চিতিয়ে বলেছিলেন, জুলাই মাসের আগে সমস্যা মিটিয়ে দেবেন। ২০১৬-র পর ২০১৭-র জুলাই শেষে, ২০১৮-র জুলাই আসতে চলল। আসলে ওকে কেউ গুরুত্ব দিচ্ছে না। ওকে না জানিয়েই মাঝখান থেকে ওর সিকিউরিটি তুলে নেওয়া হল।”

CLOSE COMMENT

ADD COMMENT

To read stories offline: Download Eenaduindia app.

SECTIONS:

  হোম

  রাজ্য

  দেশ

  বিদেশ

  ক্রাইম

  খেলা

  বিনোদন-E

  ইন্দ্রধনু

  অনন্যা

  গ্যালারি

  ভ্রমণ

  জনমত পঞ্চমত ২০১৮

  ଓଡିଆ ନ୍ୟୁଜ

  MAJOR CITIES