• A
  • A
  • A
মাধ্যমিক পরীক্ষার হলে চলবে শুধু অ্যানালগ ঘড়িই

কলকাতা, ১৩ মার্চ : শুধুমাত্র অ্যানালগ বা কাঁটা দেওয়া ঘড়িই ব্যবহার করা যাবে মাধ্যমিক পরীক্ষার হলে। জানালেন পশ্চিমবঙ্গ মধ্যশিক্ষা পর্ষদের সভাপতি কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায়। গতকাল প্রথম দিনের পরীক্ষায় যেসব পরীক্ষার্থীরা ডিজিটাল ঘড়ি নিয়ে গিয়েছিল তাদের হলে ঢুকতে বাধা দেওয়া হয়। এরপর এই নির্দেশিকার কথা স্পষ্ট করে দেন কল্যাণময়বাবু।

ভিডিওতে কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায়ের বক্তব্য


নকল রুখতে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ সিদ্ধান্ত নিয়েছে, পরীক্ষার হলে পরীক্ষার্থীরা শুধুমাত্র অ্যানালগ ঘড়িই ব্যবহার করতে পারবে। শুধু ডিজিটাল ঘড়ি, বা ডিজিটাল ও অ্যানালগ ঘড়ি কিংবা অন্য কোনওরকম গ্যাজেট ব্যবহার করা যাবে না। এদিকে, গতকাল হিন্দি ভাষার পরীক্ষায় সিলেবাসের বাইরে প্রশ্ন এসেছে বলে অভিযোগ আসে মধ্যশিক্ষা পর্ষদের কাছে। কল্যাণময়বাবু জানান, এনিয়ে এগজ়ামিনেশন কমিটির সঙ্গে কথা বলা হবে এবং পরে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। বসিরহাটে একটি স্কুলে পরীক্ষাকেন্দ্রের বাইরে থেকে উত্তর বলে দেওয়ার অভিযোগ ওঠে। তা অস্বীকার করেন কল্যাণময়বাবু। তিনি বলেন, পরীক্ষাকেন্দ্রগুলিতে যেধরনের ব্যবস্থা রাখা হয়েছে তাতে পরীক্ষার্থীরা ছাড়া বাইরের কারওর হাতে প্রশ্নপত্র পৌঁছানো অসম্ভব।


প্রথম দিনের পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হয়েছে বলে জানান পর্ষদ সভাপতি। দেবকৃষ্ণ মৈত্র নামে উত্তর ২৪ পরগনার মহিষপোতার এক ছাত্রের প্রশংসা করেন কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায়। ৯০ শতাংশ শারীরিক প্রতিবন্ধকতা নিয়ে ওই ছাত্র নাটাগড় হাইস্কুলের পরীক্ষাকেন্দ্রে সাহায্য ছাড়া নিজে লিখে পরীক্ষা দিয়েছে। যেসব অ্যাসিড আক্রান্তরা পরীক্ষা দিচ্ছে, তাদেরও লড়াকু মানসিকতার প্রশংসা করেন তিনি।

CLOSE COMMENT

ADD COMMENT

To read stories offline: Download Eenaduindia app.

SECTIONS:

  হোম

  রাজ্য

  দেশ

  বিদেশ

  ক্রাইম

  খেলা

  বিনোদন-E

  ইন্দ্রধনু

  অনন্যা

  গ্যালারি

  ভ্রমণ

  ଓଡିଆ ନ୍ୟୁଜ

  পুজোর খবর

  MAJOR CITIES