• A
  • A
  • A
ফরাসি ঐতিহ্যের নিদর্শন পরখ করতে ঘুরে আসুন চন্দননগর

চন্দননগর হুগলি নদীর পশ্চিমতীরে অবস্থিত হুগলি জেলার একটি মহকুমা শহর। খলিসানি, বোরো ও গোন্দলপাড়া নামক তিনটি প্রাচীন মৌজা এবং গৌরহাটির ছিটমহল সমেত ৯ বর্গ কিলোমিটার এলাকা নিয়ে চন্দননগর। একসময় চন্দননগর ছিল ফরাসি উপনিবেশ। তাই তাকে ফরাসডাঙা বলে ডাকা হত। ফরাসিদের আগমনের আগে বাণিজ্যিক সমৃদ্ধির জন্য চন্দননগরের খ্যাতি ছিল। জানা যায়, একসময়ে বিপুল পরিমাণে চন্দন কাঠের ব্যবসা হওয়ার কারণেই এই জায়গার নাম চন্দননগর হয়।


ইংরেজশাসিত কলকাতার সঙ্গে পাল্লা দিয়েছে এই ফরাসিশাসিত নগর। কলকাতার মতো চন্দননগরেও রয়েছে স্ট্র্যান্ড রোড, বড়বাজার, বাগবাজার, বউবাজার। এলাকার নিকাশি ব্যবস্থা থেকে রাস্তাঘাট, সবতেই ফরাসি আমলের ছাপ পাওয়া যায়।


জানা যায়, ফরাসি উপনিবেশ হওয়ায় স্বাধীনতা আন্দোলনের সময় বিপ্লবীরা এখানে লুকিয়ে থাকতেন। আলিপুর বোমা মামলায় অভিযুক্ত হয়ে অরবিন্দ ঘোষ ও অন্য বিপ্লবীরা এখানে আশ্রয় নেন। চট্টগ্রাম অস্ত্রাগার লুন্ঠনের ঘটনায় জড়িত গনেশ ঘোষ, অনন্ত সিংহ, শহিদ জীবন ঘোষালরাও এখানে লুকিয়ে ছিলেন। ফরাসি উপনিবেশ হওয়ার কারণে ব্রিটিশ পুলিশকে এখানে অনুমতি নিয়ে প্রবেশ করতে হত।

শহিদ কানাইলাল বসুর শৈশব কেটেছে এই শহরে। তাঁর ভিটে, নামাঙ্কিত একটি বিদ্যালয় ও মাঠ রয়েছে এই শহরে রয়েছে। বিপ্লবী রাসবিহারী বসুর পৈতৃক ভিটেও এই শহরের ফটোকগোড়া এলাকায়। কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরও একাধিকবার এই শহরে এসে থেকেছেন। তাঁর স্মৃতিবিজড়িত পাতালবাড়ি স্ট্রান্ডের দক্ষিণপ্রান্তে অবস্থিত। চন্দননগরের আরেক নাম ফরাসডাঙা।

কী কী দেখবেন :

চন্দননগর স্ট্র্যান্ড পার্ক
চন্দননগর মিউজিয়াম এব‌ং ইন্সটিটিউট
ফরাসি সমাধিস্থল
চন্দননগর গেট
পাতাল বাড়ি
নন্দদুলাল মন্দির
নৃত্যগোপাল স্মৃতি মন্দির
বিশালক্ষ্মী মন্দির
রাধানাথ শিকদার হিমালয়ান মিউজ়িয়াম
রাসবিহারী রিসার্চ ইন্সটিটিউট

কীভাবে যাবেন :

রেলপথে হাওড়া স্টেশন থেকে বর্ধমানের দিকে পূর্ব রেলওয়ের বেশ কিছু্ ট্রেন রয়েছে প্রায় ১০ থেকে ১২ মিনিট অন্তর। এখান থেকে বর্ধমান মেন লাইনের লোকাল বা ব্যান্ডেল লোকাল বা কাটোয়া লোকাল ধরে চন্দননগর স্টেশন। এছাড়াও, কলকাতা থেকে GT রোড ধরে যেতে পারেন। অথবা দুর্গাপুর এক্সপ্রেসওয়ে ধরে কংসরির মোড়। সেখান থেকে ১৭ নম্বর রুট ধরে বাঁদিকে চুঁচুড়া হয়ে চন্দননগর।

CLOSE COMMENT

ADD COMMENT

To read stories offline: Download Eenaduindia app.

SECTIONS:

  হোম

  রাজ্য

  দেশ

  বিদেশ

  ক্রাইম

  খেলা

  বিনোদন-E

  ইন্দ্রধনু

  অনন্যা

  গ্যালারি

  ভ্রমণ

  ଓଡିଆ ନ୍ୟୁଜ

  পুজোর খবর

  MAJOR CITIES