• A
  • A
  • A
“৬ হাজার টাকা দিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বললেন মিষ্টি খেও”

জলপাইগুড়ি, ১০ জুলাই : ব্যস্ত ছিলেন দোকান সামলাতে। প্রতিদিনের মতো মোটামুটি ভিড়ও ছিল। আর তার মাঝে সেখানে হঠাৎ হাজির হন স্বয়ং মুখ্যমন্ত্রী। শোনেন সুখ-দুঃখের কথা। যাওয়ার সময় হাতে টাকা দিয়ে বলে যান, “সবাই মিলে মিষ্টি খেও।” আজ এই অভিজ্ঞতাই হল রাজগঞ্জের চায়ের দোকানি অনুকূল কুড়ির।


জলপাইগুড়ি রাজগঞ্জের ফাটাপুকুর পেট্রল পাম্পের পাশেই অনুকূল কুড়ির ছোট্ট চায়ের দোকান। আজ সকালে এই দোকানের সামনের রাস্তা দিয়েই উত্তরকন্যা থেকে চ্যাংরাবান্ধা গিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। অন্যদের মতোই তিনিও দাঁড়িয়েছিলেন রাস্তার পাশে। যদি তাঁকে একবার দেখা যায়, এই আশায়। সবার দেখাদেখি তিনিও হাত নেড়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রীর উদ্দেশে। তখন সেখানে থেমে কারও সঙ্গেই কথা বলেননি মুখ্যমন্ত্রী। অনুকূলও হয়ত ভাবেননি যে কথা হবে।
কয়েক ঘণ্টার ব্যবধান। যা হয়ত স্বপ্নেও ভাবেননি তাই ঘটল অনুকূলের সঙ্গে। সকালে মুখ্যমন্ত্রী চলে যাওয়ার পর চায়ের দোকান সামলাতেই ব্যস্ত হয়ে পড়েছিলেন। বিকেলে হঠাৎই দোকানের সামনে এসে দাঁড়ায় কয়েকটা গাড়ি। প্রথমে বুঝতে পারেননি। এরপর একটা সাদা গাড়ি থেকে মুখ বের করে তাঁকে ডেকে পাঠান মুখ্যমন্ত্রী। প্রথমে কিছুটা হকচকিয়ে গিয়েছিলেন। ঘোর কাটতেই দৌড়ে যান।

তারপর যা ঘটল তা অনুকূলের কাছে ছিল খানিকটা স্বপ্নের মতোই। গাড়ির কাছে গিয়ে কথা বলেন মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে। তাঁর পরিবার, কাজ সম্পর্কে খোঁজখবর নেন রাজ্যের প্রশাসনিক প্রধান। আর সব শেষে অনুকূলকে অবাক করে দিয়ে তাঁর হাতে ৬ হাজার টাকা দেন। বলেন, “বাড়ির সবাই মিলে মিষ্টি খেও।” অনুকূলের ঘোর কাটতে না কাটতেই সেখান থেকে বেরিয়ে যান মুখ্যমন্ত্রী। নিমেষে মিলিয়ে যায় সাদা গাড়িটা।

CLOSE COMMENT

ADD COMMENT

To read stories offline: Download Eenaduindia app.

SECTIONS:

  হোম

  রাজ্য

  দেশ

  বিদেশ

  ক্রাইম

  খেলা

  বিনোদন-E

  ইন্দ্রধনু

  অনন্যা

  গ্যালারি

  ভ্রমণ

  ଓଡିଆ ନ୍ୟୁଜ

  আয়না ২০১৮

  MAJOR CITIES